সড়ক উন্নয়নে চসিককে সার্ভিস চার্জ দেয়া উচিত: সুজন


আপডেটের সময়ঃ অক্টোবর ২০, ২০২০


চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের প্রশাসক মোহাম্মদ খোরশেদ আলম সুজন বলেছেন, চট্টগ্রামে যে স্টীল মিলগুলো আছে আপনারা বাংলাদেশের উন্নয়নের অংশীদার। তবে আপনাদের ভারী যানবাহনগুলো সিটি কর্পোরেশনের সড়ক ব্যবহার করছে। এতে করে সড়কের ধারণ ক্ষমতার অতিরিক্তি বাড়তি চাপ বহন করতে হচ্ছে। এ জন্য সড়কগুলো ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে। তাই ক্ষতিগ্রস্ত সড়কগুলো সংস্কার করে আপনাদের ভারী যান চলাচলের উপযুক্ত করে রাখার জন্য একটি সার্ভিস চার্জ আমরা পেতেই পারি। আমি আশা করবো, আপনারা আপানাদের নিজ নিজ প্রতিষ্ঠানের মালিকদের সাথে বসে চসিকের জন্য একটি সার্ভিস চার্জ আপনারাই নির্ধারণ করবেন।

মঙ্গলবার (২০ অক্টোবর) দুপুরে টাইগারপাসস্থ চসিক প্রশাসকের দপ্তরে স্টীলমিল মালিকদের সাথে সৌজন্য বৈঠকে প্রশাসক এসব কথা বলেন।

তিনি আরো বলেন, চট্টগ্রাম বন্দরকে ঘিরে যে কন্টেইনার ইয়ার্ডগুলো স্থাপন করা হয়েছে, তা মোটেই পরিকল্পিত নয়। কথা ছিল বন্দরের ২০ কি.মি. পরেই কন্টেইনার ইয়ার্ডগুলো থাকবে। অথচ এই আইনের প্রতি বৃদ্ধাঙ্গুলি দেখিয়ে বন্দরের প্রবেশ মুখে যত্রতত্রভাবে এসব ইয়ার্ডগুলো স্থাপন করা হচ্ছে। এতে চট্টগ্রামে যানজট হচ্ছে এবং বন্দরের স্বাভাবিক কার্যক্রম ব্যহত হচ্ছে। তিনি বলেন, পোর্ট কানেক্টিং রোডের স্টীলমিলগুলোর যে লড়িগুলো পিসি রোড দখল করে রাখে, তা আগামী দুই একদিনের মধ্যে নিজ উদ্যোগে সরিয়ে না নিলে সিটি কর্পোরেশন ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণে বাধ্য হবে। তিনি চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের হোল্ডিং ট্যাক্স বাবদ কোন পাওনা থাকলে তা অতিসত্তর সময়ে পরিশোধ করার জন্য স্টীলমিল মালিকদের অনুরোধ জানান। শহরের সৌন্দর্য রক্ষার ক্ষেত্রে আপনারা কর্পোরেশনের নির্দেশনা অনুযায়ী করবেন বলে আমি আশি রাখি।

এ সময় চসিক প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা কাজী মোজাম্মেলক হক, প্রধান রাজস্ব কর্মকর্তা মুফিদুল আলম, রাজস্ব কর্মকর্তা সাহিদা ফাতেমা, প্রশাসকের একান্ত সচিব মুহাম্মদ আবুল হাশেম, বিএসআরএম’র পরিচালক তপন সেনগুপ্ত, কেএসআরএম’র পরিচালক সৈয়দ নজরুল আলম, আবুল খায়ের গ্রুপের বিগ্রেডিয়ার জেনারেল (অবঃ) শহিদুল্লাহ চৌধুরী, জিপিএইচ ইস্পাতের মিডিয়া এ্যাডভাইজার অভিক ওসমানসহ অন্যরা উপস্থিত ছিলেন।

নিজস্ব প্রতিবেদক, ফোকাস চট্টগ্রাম ডটকম

পরিবার ও দেশকে সুস্থ রাখতে ঘরে থাকুন, করোনা মোকাবেলায় স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলুন। ঘরের বাইরে গেলে মাস্ক পরিধানসহ নিরাপদ দূরত্ব বজায় রাখুন। সৌজন্যেঃ দেশচিত্র ডটনেট।