রাঙামাটি–বান্দরবান সড়কের বেইলি ব্রিজের সংস্কার কাজ শুরু করেছে সড়ক জনপদ বিভাগ


আপডেটের সময়ঃ ফেব্রুয়ারি ২০, ২০২১


রাঙামাটির রাজস্থলী এলাকায় রাঙামাটি- বান্দরবান সড়কের বাঙ্গালহালিয়া বেইলিব্রীজ  ভেঙ্গে যাওয়ায় চরম দুর্ভোগে পোহাতে হচ্ছে পথচারীদের। রাঙামাটি- বান্দরবান সড়ক দিয়ে প্রতিদিন হাজারো মানুষ যাতায়াত করে এই সড়ক দিয়ে।

এদিকে,শনিবার (২০ ফেব্রুয়ারী) সকাল থেকে বান্দরবান সড়ক জনপদ বিভাগ ব্রীজটি সংস্কারের জন্য কাজ শুরু করেছে। বাঙ্গালহালিয়া ইউপি চেয়ারম্যান ঞোমং মারমা ও তথ্যমন্ত্রীর ভাই এরশাদ মাহমুদ এর  ব্যক্তিগত উদ্যোগে ভাঙ্গা ব্রীজটির পাশে একটি বিকল্প সড়ক নির্মাণ করা হয়েছে। এবিকল্প সড়ক দিয়ে সকাল থেকে হালকা যানবাহন চলাচল করছে।

স্থানীয় এলাকাবাসী মো: কুদ্দুস বলেন, বেশ কয়েক বছর ধরে  বেইলিব্রীজটি ঝুঁকিপুর্ন অবস্থায় ছিল। সড়ক জনপদ বিভাগ পাঁচ টনের অধিক মালামাল পরিবহনে নিষেধ  থাকলেও কার কথা কে শুনে, এমনটাই মনে করে ট্রাক ড্রাইভার গুলো। প্রতিদিন ২৫-৩০ টন মালামাল নিয়ে ঝুঁকিপূর্ণ ব্রীজটি দিয়ে যানবাহন চলাচল করে আসছিল। গত বৃহস্পতিবার চট্টগ্রাম থেকে বান্দরবান যাওয়ার পথে পাথর বোঝাই ট্রাকটি ব্রীজ ভেঙ্গে পাশের খাঁদে পড়ে যায়। তার পর থেকে বান্দরবান জেলার সাথে রাঙামাটির সড়ক যোগাযোগ ব্যবস্থা বন্ধ হয়ে যায়।

বাঙ্গালহালিয়া ইউপি সদস্য জাহাঙ্গীর আলম চৌধুরী জানান, রাঙামাটি-বান্দরবান সড়কটি দিয়ে প্রতিদিন হাজার হাজার মানুষের চলাচলের একমাত্র সড়ক। বিশেষ করে বান্দরবান থেকে রাঙামাটি টু খাগড়াছড়ি জেলায়ও যাতায়াতসহ অন্যদিকে চট্টগ্রামের রাঙ্গুরীয়া উপজেলার পদুয়া ইউনিয়নের অধিকাংশ কৃষকদের  কাঁচা মালামাল বাজারজাত করনে ব্যাপক লোকসান গুনতে হচ্ছে বলে জানান।

এদিকে,বান্দরবান সড়ক জনপদ  বিভাগের উপ সহকারী প্রকৌশলী পরেন্দ্র বিকাশ চাকমা জানিয়েছেন ব্রীজটি বান্দরবান-রাঙামাটি সড়কের যোগাযোগের প্রধান মাধ্যম। তাই ব্রীজটি দ্রুত সংস্কারের প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে এবং আগামী এক সপ্তাহের মধ্যে ব্রীজটি সংস্কারের কাজ সম্পন্ন হবে বলে জানান তিনি।

রাজস্থলীর বাঙালহালিয়া ইউপি সদস্য নজরুল ইসলাম বলেন, ইউপি চেয়ারম্যান ঞোমং মারমার নির্দেশে এবং তথ্যমন্ত্রীর ছোট ভাই এরশাদ মাহমুদ এর ব্যক্তিগত উদ্যোগে ভাঙ্গা ব্রীজটির পাশ দিয়ে হালকা যানবাহন চলাচলের জন্য একটি বিকল্প সড়ক নির্মাণ করা হয়েছে। বর্তমানে এ  সড়ক দিয়ে বান্দরবানগামী হালকা যানবাহন চলাচল করছে।

নিজস্ব প্রতিবেদক-রাঙামাটি, ফোকাস চট্টগ্রাম ডটকম

পরিবার ও দেশকে সুস্থ রাখতে ঘরে থাকুন, করোনা মোকাবেলায় স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলুন। ঘরের বাইরে গেলে মাস্ক পরিধানসহ নিরাপদ দূরত্ব বজায় রাখুন। সৌজন্যেঃ দেশচিত্র ডটনেট।