ডা. শাহাদাতকে জেলগেটে জিজ্ঞাসাবাদের নির্দেশ, ১১ নেতা-কর্মীর একদিনের রিমান্ড


আপডেটের সময়ঃ এপ্রিল ১, ২০২১


চট্টগ্রাম মহানগরের কাজীর দেউড়িতে বিএনপির দলীয় কার্যালয়ে বিক্ষোভ সমাবেশ ও মিছিলকে কেন্দ্র করে পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষের মামলায় বিএনপির ১১ নেতা-কর্মীর এক দিন করে রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত।

বুধবার (৩১ মার্চ) চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট হোসেন মোহাম্মদ রেজা এ রিমান্ডের আদেশ দেন।

এদিকে মহানগর বিএনপির আহ্বায়ক ডা. শাহাদাত হোসেনকে চাঁদা দাবির মামলায় জেলগেটে জিজ্ঞাসাবাদ করার নির্দেশ দিয়েছেন আদালত। গতকাল বুধবার দুপুরে অতিরিক্ত মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট মহিউদ্দিন মুরাদের আদালত এ আদেশ দেন।

রিমান্ডে যাওয়া আসামিরা হলেন- মারুফুল হক চৌধুরী মারুফ, আব্দুল মোতালেব প্রকাশ কিং মোতালেব, মো. ফিরোজ, তারেক আজিজ, মো. আবু বক্কর ছিদ্দিক, সাইদ তানজিম মাহমুদ, আব্দুর রহিম প্রকাশ মিনার রহিম, মো. আলি আকবর হোসেন, মো. লিটন, মো. হায়দার হোসেন ও সাকিব হোসেন।

আসামি পক্ষের আইনজীবী এড.মো. এরফানুর রহমান জানান, কোতোয়ালী থানার মামলায় গ্রেফতার বিএনপির ১৬ নেতা-কর্মীর ৭ দিন করে রিমান্ডের আবেদন করা হয়েছে। আদালত শুনানি শেষে পুরুষ ১১ জনের এক দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন। নারী ৫ জনের রিমান্ড না মঞ্জুর করেন।

ডা. শাহাদাত হোসেনের আইনজীবী ও চট্টগ্রাম জেলা আইনজীবী সমিতির সভাপতি এড. এনামুল হক জানান, চকবাজার থানায় চাঁদা দাবি ও অপহরণের অভিযোগে করা মামলায় ১০ দিনের রিমান্ডের আবেদন করা হয়। আদালত শুনানি শেষে ডা. শাহাদাত হোসেনকে জেলগেটে জিজ্ঞাসাবাদের নির্দেশ দিয়েছেন। অন্য দুই মামলায় রিমান্ড আবেদন করা হয়নি।

জানা গেছে, গত মঙ্গলবার বিকেলে চট্টগ্রাম মহানগর হাকিম সারোয়ার জাহানের আদালতে হাজির করা হলে আদালত ডা. শাহাদাত হোসেনকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন। এর আগে গত সোমবার সন্ধ্যায় পাঁচলাইশ এলাকার বেসরকারি ট্রিটমেন্ট হাসপাতালে অভিযান চালিয়ে নিজ চেম্বার থেকে গ্রেফতার করা হয় ডা. শাহাদাত হোসেনকে। ডা. শাহাদাতের বিরুদ্ধে এক কোটি টাকা চাঁদা দাবির মামলা করেন নগর বিএনপির সাবেক সহ-দফতর সম্পাদক ও নারী নেত্রী লুসি খান।  এছাড়া নগরের কাজীর দেউড়িতে বিএনপির দলীয় কার্যালয়ে বিক্ষোভ সমাবেশ ও মিছিলকে কেন্দ্র করে পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষে দুই মামলায় বিএনপির চট্টগ্রাম বিভাগীয় সাংগঠনিক সম্পাদক মাহবুবুর রহমান শামীম, সদস্য সচিব আবুল হাশেম বক্কর, দক্ষিণ জেলার আহ্বায়ক আবু সুফিয়ানসহ ৫৭ জনের নাম উল্লেখ করে কোতোয়ালী থানায় দায়ের করা মামলায় তাকে গ্রেফতার দেখানো হয়।

নিজস্ব প্রতিবেদক, ফোকাস চট্টগ্রাম ডটকম

পরিবার ও দেশকে সুস্থ রাখতে ঘরে থাকুন, করোনা মোকাবেলায় স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলুন। ঘরের বাইরে গেলে মাস্ক পরিধানসহ নিরাপদ দূরত্ব বজায় রাখুন। সৌজন্যেঃ দেশচিত্র ডটনেট।