অর্ধ হাজার দরিদ্র জনগোষ্ঠী পেল সৌদি সরকারের খাদ্য ঝুড়ি


আপডেটের সময়ঃ মে ৮, ২০২১


চট্টগ্রামের এক হাজার পরিবার পেল সৌদি আরবের বাদশা সালমান বিন আবদুল আজিজের পাঠানো খাদ্য ঝুড়ি। কিং  সালমান হিউম্যানিটেরিয়ান এইড এন্ড রিলিফ সেন্টার কর্তৃক দরিদ্র জনগোষ্ঠী ও রোহিঙ্গাদের জন্য পাঠানো এ খাদ্যঝুড়ি।

শনিবার (৮ মে)  নগরীর পৃথক দুটি স্থানে এ খাদ্যঝুড়ি বিতরণ করা হয়।

মহামারী  করোনার লকডাউনে এবং এবাদতের মাস রমজানে দরিদ্র জনগোষ্ঠীর  জীবনমান উন্ননে এ কর্মসূচি বাস্তবায়ন করছে সৌদি সরকার। কর্মসূচির অধীনে বাংলাদেশে ৮০ হাজার খাদ্যঝুড়ি বিতরণ করা হচ্ছে। সৌদি আরবের বাদশা সালমান বিন আবদুল আজিজের প্রতিনিধিদল উপস্থিত থেকে কর্মসূচি বাস্তবায়ন করা হয়। নগরীর ইন্টারন্যাশনাল কনভেনশন হলে ৫শ জনগোষ্ঠীর হাতে এ খাদ্য ঝুড়ি তুলে দেয়া হয়।

খাদ্যঝুড়ি বিতরণ কার্যক্রমের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে আল মানাহিল ওয়েল ফেয়ার ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান হেলাল বিন জমির উদ্দীনের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি ছিলেন চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশ কমিশনার সালেহ মোহাম্মদ তানভীর। বিশেষ অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন, উপ-পুলিশ কমিশনার (দক্ষিণ) বিজয় বসাক, চট্টগ্রাম চেম্বারের পরিচালক ও চট্টগ্রাম মহানগর কমিউনিটি পুলিশের সদস্য সচিব অহিদ সিরাজ চৌধুরী স্বপন। আল মানাহিল ওয়েল ফেয়ার ফাউন্ডেশনের, প্রধান নির্বাহী ফরিদ উদ্দিন জমির উদ্দিন, প্রধান সমন্বয়কারী আবুল কালাম আজাদ।

পুলিশ কমিশনার সালেহ মোহাম্মদ তানভীর বলেন, সৌদি আরব সব সময় বাংলাদেশের পাশে থাকে। লকডাউনের এ সময়েও তারা বাংলাদেশের রোহিঙ্গা এবং দরিদ্র জনগোষ্ঠীর পাশে খাদ্য সহায়তা নিয়ে দাঁড়িয়েছে। খাদ্যসহায়তা পেয়ে অসহায়  লোকজন তাদের প্রয়োজন মেটাতে পারবে। এ সময়ে বিত্তবানদের সবার উচিত অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়ানো। তাহলে আমরা সরকারের ভিশন অর্জন করতে সক্ষম হবো। দেশের বিভিন্ন জেলায়, বিশেষ করে কক্সবাজার, ঢাকা, নীলফামারী, যশোর, রাজশাহী ও চট্টগ্রামে এসব খাবার দেয়া হয়েছে। প্রতি পরিবারে চারজন হিসেবে প্রায় এক লাখ ২০ হাজার মানুষ এতে উপকার পেয়েছেন। পরিবারের জন্য নিত্য প্রয়োজনীয় তেল, চিনি, চালসহ বিভিন্ন উপকরণ আছে এই খাদ্য ঝুড়িতে। এতে মোট ২৫ কেজি খাদ্যদ্রব্য রয়েছে।

নিজস্ব প্রতিবেদক, ফোকাস চট্টগ্রাম ডটকম

পরিবার ও দেশকে সুস্থ রাখতে ঘরে থাকুন, করোনা মোকাবেলায় স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলুন। ঘরের বাইরে গেলে মাস্ক পরিধানসহ নিরাপদ দূরত্ব বজায় রাখুন। সৌজন্যেঃ দেশচিত্র ডটনেট।